Home শীর্ষ কাহিনি প্রচ্ছদ মুখ বই পড়ুন অনলাইনে বন্ধুদের সাথে কথা বলুন

বই পড়ুন অনলাইনে বন্ধুদের সাথে কথা বলুন

SHARE

করোনার কারনে ঘরবন্দী রয়েছি আমরা। এর আগে এতটা সময় কেউই ঘরবন্দী থাকিনি। তাই অস্থিরতায় পেয়ে বসেছে অনেককে। বিশেষ অনুরোধ, অস্থির হবেন না। শান্ত থাকুন। শান্ত থেকেই পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণ করতে হবে আমাদেরকে। অনেকে হয়তো বলবেন “বলা যত সহজ করা এত সহজ নয়”। কথাটা ঠিক। কিন্তু চেষ্টা করলে কি না সম্ভব? আসুন না আমরা একটু চেষ্টা করে দেখি। আচ্ছা, বই পড়েন না কতদিন? প্রিয় কবি লেখকের বই কিনে এনে হয়তো আলমারীতে জমিয়ে রেখেছেন। আলমারীর তালা খুলে দিন। প্রিয় লেখকের বই পড়তে শুরু করুন। একটা কাজ করতে পারেন বিশেষ কোন উপন্যাস অথবা কবিতা সকলেই পড়লেন। তারপর সেটা নিয়ে পারিবারিক ভাবেই একটা আলোচনার ব্যবস্থা করুন। পরিবারের বাইরে বন্ধুদের সাথেও বইপড়া ও আড্ডার ব্যবস্থা করা যায়। হয়তা কলেজ, বিশ্ববিদ্যালয় জীবনের ৫/৭ জন বন্ধু, বান্ধবী মিলে নির্ধারিত কোনো কবি অথবা লেখকের জনপ্রিয় একটি বই পড়লেন। তারপর ওই বই নিয়ে হতে পারে অনলাইন আড্ডা। বইয়ের আলোচনা ছাড়াও বন্ধুদের সাথে সাম্প্রতিক বিষয় অথবা কলেজ জীবনের বিষয় অনলাইনে আড্ডা হতে পারে। তাহলে দেখবেন অলস সময় গুলো আনন্দে কেটে যাবে। যাদের বাড়ির পাশে খোলা জায়গা আছে তারা বাগান করার উদ্যোগ নিতে পারেন। শহরে বাড়ির ছাদে যারা বাগান করেছেন তারা বাগানের পরিচর্যা করে সময়টাকে উপভোগ করতে পারেন। পরিবারের ছোট ছোট সদস্যদেরকে ভালো কাজে উৎসাহ দিন। তাদেরকে বিষয়ভিত্তিক রচনা লিখতে বলুন। এজন্য পুরস্কারের ব্যবস্থা রাখুন। দেখবেন ওরা দারুন ব্যস্ত হয়ে উঠবে।
পরিবারের কেউ যদি গানের চর্চা করে তাকে উৎসাহ দিন। তার একক গানের ব্যবস্থা করতে পারেন।
এভাবেই ভালো থাকার চেষ্টা করুন সকলে। ঘরে থাকুন এবং ঘরেই থাকুন প্লিজ