Home আরোও বিভাগ টিভি গাইড এটাই আমাদের আসল ঘর

এটাই আমাদের আসল ঘর

SHARE

জনপ্রিয় চিত্রনাট্যকার মাসুম রেজা। বিটিভিতে একসময় এই গুণী চিত্রনাট্যকারের লেখা কৈতম, কাবুলীওয়ালা, ফিরে আসা, যুগলবন্দী, আজকের অতিথি, বদর উদ্দিনের ব্রিফকেসসহ আরও অনেক নাটক লিখেছেন। পরবতর্ী সময়ে চ্যানেল আই-এর রঙের মানুষ লিখে তিনি পান ব্যাপক জনপ্রিয়তা। বর্তমানে তিনি বেশকিছু নতুন ধারাবাহিক ও খ নাটকের লেখা নিয়ে ব্যস্ত রয়েছেন। এর পাশাপাশি রয়েছে মঞ্চনাটক নিয়েও তার ব্যস্ততা। কথা হলো মাসুম রেজার সঙ্গে-

আনন্দ আলো: সম্প্রতি আপনার লেখা বিটিভিতে একটি ধারাবাহিক প্রচার শুরু হয়েছে। বলা যায় দীর্ঘ বিরতির পর আপনার লেখা নাটক বিটিভিতে প্রচার হচ্ছে-

মাসুম রেজা: হ্যাঁ। নতুন ধারাবাহিকের নাম বাদশা স্যারের বিবাহ। প্রায় ১৫ বছর পর আমার লেখা ধারাবাহিক নাটক বিটিভিতে প্রচার হচ্ছে। ঠিক কী কারণে বিটিভিতে আমার এতোটা গ্যাপ তৈরি হয়েছে আমি জানি না। তবে আমি উন্মুখ হয়ে থাকতাম কখন আমাকে ডাকবে বিটিভি! কারণ, এটাই আমাদের আসল ঘর। এখন মনে হচ্ছে এতো বছর পর নিজেরই ঘরে এলাম। এ জন্য নাটকটির প্রযোজক রফিক উদ্দিন আহমেদকে ধন্যবাদ দিতে চাই।

আনন্দ আলো: ‘বাদশা স্যারের বিবাহ’ নাটকটি কী নিয়ে?

মাসুম রেজা: এই নাটকে হাসি-ঠাট্টার মধ্য দিয়ে একটি কঠিন কথা বলতে চেয়েছি। আমাদের সমাজে মেয়েদের বিয়ে দেয়ার ক্ষেত্রে এমন গুণাবলির খোঁজ করা হয়, যা একজন মেয়েকে শুধু রান্নাঘরে আবদ্ধ করে ফেলে। বিয়ের পর মেয়েরা গৃহকর্ত্রীর বদলে গৃহকর্মীতে পরিণত হয়। এই নাটকে বাদশা স্যারের উপলব্ধির মধ্য দিয়ে সেই সত্য প্রতিষ্ঠিত হয়।

আনন্দ আলো: আর কী ব্যস্ততা আপনার?

মাসুম রেজা: প্রচার চলতি আরো কিছু ধারাবাহিক প্রচার হচ্ছে। এগুলোর নিয়মিত পর্ব লিখতে হচ্ছে। এরমধ্যে রয়েছে সালাহউদ্দিন লাভলুর পরিচালনায় দ্যা ভিলেজ ইঞ্জিনিয়ার, এস এ হক অলিকের আয়না ঘর, সৈয়দ শাকিলের উল্টো স্রোতসহ আরো কিছু নাটক। এছাড়াও বাংলাভিশনের নিজস্ব প্রযোজনায় নির্মিত হবে নতুন একটি ধারাবাহিক ছন্নছাড়া। এটি এখনো কে পরিচালনায় করবে তা ঠিক হয়নি।

আনন্দ আলো: মঞ্চে কি নিয়ে ব্যস্ততা?

মাসুম রেজা: দেশ নাটকের জন্য সুরগাঁও শিরোনামের একটি নাটক লিখছি। এটি ডিসেম্বরে মঞ্চে আসবে। নাটকটি নির্দেশনা দিবেন নাছির উদ্দিন শেখ।

আনন্দ আলো: আপনার লেখা বাপজানের বায়োস্কোপ নিয়ে কিছু বলুন-

মাসুম রেজা: খুব চমৎকার একটি গল্পের ছবি বাপজানের বায়োস্কোপ। রিয়াজুল রিজুর পরিচালনায় ছবিটি সেন্সর ছাড়পত্র পেয়েছে। ডিসেম্বরে মুক্তি দেয়া হবে। এই ছবিটি নিয়ে শুধু আমি একটি কথাই বলবো তা হলো ছবিটি দেখার পর যেকারোরই বিশেষ কোনো চিন্তা হবেই।

চ্যানেল আইয়ের বিনোদন থার্ডবেল ডটকমে

Channel-I-and-3rdBellএখন থেকে চ্যানেল আইয়ের সব বিনোদন কনটেন্ট পাওয়া যাবে থার্ডবেল ডটকমে। এজন্য ইমপ্রেস টেলিফিল্ম লিমিটেড ও অনলাইন বিনোদন পোর্টাল থার্ডবেল ডটকমের সাথে একটি চুক্তি স্বাক্ষরিত হয়। চুক্তি স্বাক্ষর অনুষ্ঠানে উপস্হিত ছিলেন চ্যানেল আইয়ের ব্যবস্হাপনা পরিচালক ফরিদুর রেজা সাগর, থার্ডবেল ডটকমের চেয়ারম্যান সাব্বির রহমান তানিম, ব্যবস্হাপনা পরিচালক ও অভিনেতা আদনান ফারুক হিল্লোল এবং পরিচালক নাজনীন হাসান চুমকি। চুক্তি অনুযায়ী আগামী পাঁচ বছর ইমপ্রেস টেলিফিল্ম’র সব বিনোদন কনটেন্ট পাওয়া যাবে থার্ডবেল ডটকমে। এছাড়াও বিশ্বব্যাপী থার্ডবেল ডটকম ইমপ্রেস টেলিফিল্ম’র ডিজিটাল বিতরণের অধিকার পাবে। দর্শকরা তাদের নিজেদের ইচ্ছেমতো সময়ে থার্ডবেল ডটকমে ভিজিট করে নাটক চলচ্চিত্রসহ সব অনুষ্ঠান দেখতে পারবেন। থার্ডবেল ডটকমের চেয়ারম্যান সাব্বির রহমান তানিম বলেন, আমরা মানুষের বিনোদনের ধারণা বদলে দিতে চাই। আমরা চাই না দর্শক তার পছন্দের অনুষ্ঠানটি মিস করুক। দর্শক যেকোনো সময় তাদের ইচ্ছেমতো যেকোনো অনুষ্ঠান বিনামূল্যে যেনো দেখতে পারেন সেজন্যই আমাদের থার্ডবেল ডটকম। উল্লেখ্য,র্ রঢঠণফফ.ডমব অনলাইনে নাটক, চলচ্চিত্র, মিউজিক ভিডিও দেখার একটি পোর্টাল।

ভীতু মানুষ তৌকীর!

Toukir-Ahmmed--(2)সবখানেই লোকটা ভয় পায়। রাস্তায় চলতে, অফিসে বসের চোখে চোখ রেখে কথা বলতে। এমনকি তার চোখের সামনেই যখন একটা খুনের ঘটনা ঘটে, কাউকে কিচ্ছু জানায় না সে। উল্টো দৌঁড়ে ঘরের দরজা বন্ধ করে শুয়ে থেকে কাঁপে এবং জ্বর বাঁধিয়ে ফেলে। এই লোকটির নাম হামিদুর রহমান খান। এমনি চরিত্রে অভিনয় করেছেন তৌকীর আহমেদ। গল্প এখানেই শেষ নয়। নাটকটির পরিচালক ফয়সাল রাজিব জানান, অফিসে যাওয়ার সময় প্রতিদিন তার এক বাচ্চা মেয়ের সঙ্গে দেখা হয়। যখনই দেখা হয়, মেয়েটা কিছু না কিছু পড়ে কবিতা, গল্প, ছড়া, বর্ণমালা। একদিন হামিদুর রহমান খান আবিষ্কার করে, মেয়েটা বীরশ্রেষ্ঠ হামিদুর রহমান খানের গল্প পড়ছে। তার হুঁশ আসে। ঘটনা মোড় নিতে থাকে অন্যদিকে। এমনি গল্প নিয়ে নির্মিত হয়েছে মুক্তিযুদ্ধভিত্তিক নাটক বীরশ্রেষ্ঠ হামিদুর রহমান খান। মাসুম শাহরিয়ারের গল্প অবলম্বনে এটি নির্মাণ করেছেন ফয়সাল রাজিব। হামিদুর রহমান খান চরিত্রে অভিনয় করেছেন তৌকীর আহমেদ আর নাটকটিতে চিত্রার ভূমিকায় আছেন আশনা হাবিব ভাবনা। আরো অভিনয় করেছেন কাজী উজ্জ্বল।